শুক্রবার ২৪ নভেম্বর ২০১৭


উপকাররে প্রতদিান


আমাদের অর্থনীতি :
10.03.2017

 

মাহফুয আহমদ

আল্লামা শাওকানি রাহ. তাঁর গ্রন্থে নবম হজিরি শতাব্দীর ইয়মেনেরে আলমে শায়খ আলি ইবনে আহমাদ ইবনে মুহাম্মাদ আল বাকরি রাহ.’র জীবনলপিতিে সদকা ও পরোপকাররে ফজলিত সংক্রান্ত একটি বস্মিয়কর গল্প বলছেনে। ইয়মেনেরে এলাকা আল হুমরা লোহতি সাগররে তীরর্বতী ইয়মেনেরে পশ্চমিাঞ্চলে অবস্থতি। এই এলাকায় একজন কৃষক ছলি। তাকওয়া, খোদাভীতি এবং গরবিদরে, বশিষেত মুসাফরিদরে প্রচুর দান করায় তার বশে প্রসদ্ধিি ছলি।

লোকটি একটি মসজদি নর্মিাণ কর।ে এই মসজদিে প্রতি রাত্রে বাতি জ্বালয়িে রাখত; পথচারীদরে চলাচল সুবধর্িাথ।ে মসজদিে রাতরে খাবারও রখেে দতি; যার প্রয়োজন হয় সে যনে খতেে পায়। এমন কাউকে পাওয়া গলেে তাকে খাবার দয়িে দওেয়া হতো না হয় নজিইে খয়েে নতি এবং নফল নামাজে মসজদিে দাঁড়য়িে যতে। এটাই ছলি তার নয়িম ও রুটনি। এর কছিুকাল পরই ইয়মেনেে চরম র্দুভক্ষি ও খরা দখো দয়ে। এমনকি নদী ও কূপরে পানওি শুকয়িে যায়। ওই ব্যক্তি তো কৃষি কাজ করত। ফলে তার জীবন এবং ফসল রক্ষায় পানরি খুবই প্রয়োজন ছলি। লোকটরি নজিস্ব একটি কূপও ছলি; যার পানি ইতোমধ্যে শুকয়িে গছে।ে সে নজিরে সন্তানদরে নয়িে তা পুনরায় খনন শুরু কর।ে কন্তিু খননকাজ করতে যয়েে কূপরে গভীরে পৌঁছলে কূপরে দয়োলগুলো তার উপর পড়তে লাগল এবং কূপরে আশপাশরে জমনিও ধ্বসে পড়।ে গোটা কূপ যনে লোকটকিে কবর দয়িে দলি। তার ছলেরো তাকে উদ্ধার করতে পারনে।ি তারা নরিাশ হয়ে চষ্টো ছড়েে দলি। বাপকে মৃত ভবেে তারা সম্পত্তি ভাগবাটোয়ারা করে নয়িে গলে। ছলেরো তো জানত না য,ে ধ্বসে পড়া এই কূপরে ভতেরে তাদরে বাবার কী হচ্ছ।ে তনিি কমেন আছনে! এই নকেকার লোকটা কূপ ধ্বসে পড়ার পর কূপরে গভীরে একটি গুহায় গয়িে পৌঁছায়। যখন কূপ ও আশপাশরে ভূমি ধ্বসে পড়ছেলি তখন বড় একটি কাঠরে টুকরো ওই গুহার মুখে এসে পড়।ে ফলে লোকটি নরিাপদ থকেে যান। লোকটি কূপরে এই অন্ধকার গহীনে একাকি থাকতে শুরু করনে।

অন্ধকাররে গভীরতায় লোকটি নজিরে আঙ্গুল দখেতওে সক্ষম ছলিনে না। এখানইে তার কারামত প্রকাশ হলো এবং কঠনি পরস্থিতিতিওে তার সবকছিুর ব্যবস্থা হলো। বস্তুত তার দান সদকার প্রভাব পরলিক্ষতি হলো। লোকটি হঠাৎ ওই গুহার মুখে একটি বাতি জ্বলজ্বল করতে দখেতে পায়; যা তার এই সাময়কি কবরকে আলোকতি করে তুলল। পরে লোকটি যইে খাবার নয়িে প্রতি রাতে মসজদিে গরবিদরে অপক্ষো করত, সইে খাবার তার সামনে পরবিশেতি হতে থাক।ে খাবার আসত প্রতি রাত।ে তো লোকটা রাত ও দনিরে র্পাথক্য নরিূপণ করত খাবার দয়ি।ে বাকি সময়টা সে দুয়া, জকিরি ইত্যাদি ইবাদতে অতবিাহতি করত।

সইে অবস্থায় নকেকার এই লোকটি নজি কূপরে গহীন,ে সাময়কি কবরে পুরো ছয় বছর কাটাল। অবশষেে তার ছলেদেরে মনে হলো, কূপটি নতুন করে চালু করা প্রয়োজন। সুতরাং তারা খননকাজ শুরু করে এবং একসময় ওই গুহার মুখে গয়িে পৗেঁছ।ে খনন করতে যয়েে তারা সখোনে তাদরে বাবাকে জীবতি অক্ষত অবস্থায় দখেতে পয়েে চমকে উঠ।ে হতবাক সন্তানরা বাবার কাছে জানতে চাইল এর রহস্য। বাবা বস্তিারতি জানয়িে বললনে, এসব অলৌককি কান্ড তার ওইসব সদকার ফসল; যা সে গরবিদরে দান করে থাকত। সূত্র : (আল বাদর আত তাল’ি বমিাহাসনিি মান বা’দাল কারন আস সাব’ি; শাওকান,ি ১/৪৯২-৪৯৩, দারুল কতিাবলি ইসলাম,ি কায়রো) লখেক: আলোচক, ইকরা টভি,ি লন্ডন